8.19.2014

ইসলামি শরীয়তে জন্মনিয়ন্ত্রণ করা হারাম, কাট্টা কুফুরী

আজকের দুনিয়ায় বর্তমানে বিয়ের আগেই অনেক ছেলে মেয়ে চিন্তা করেন যে বিয়ের পরে কয়টা বাচ্ছা কাচ্ছা নেবেন আবার বিবাহিতদের ও একি অবস্তাঅথচ আপনি তো মুসলিম দেখুন তো ইসলাম এই বিষয়ে কি বলেসংসারকে সচ্ছল করার নিয়তে জন্মনিয়ন্ত্রণ করা নিষিদ্ধ বা অভাব থেকে মুক্তির লক্ষে জন্মনিয়ন্ত্রণ করাও নিষিদ্ধকেননা রুটি রূযীর মালিক একমাত্র তামাম জাহান কুল কায়েনাতের মালিক আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তালা

আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তালা পবিত্র কালামুল্লাহ শরিফে বলেছেনঃ দারিদ্রতার ভয়ে তোমরা তোমাদের সন্তানকে হত্যা কর নাতাদেরকে এবং তোমাদেরকে আমিই খাদ্য প্রদান করে থাকি। [সূরা ইসরা, আয়াত শরিফ-৩১] তাই দরিদ্রতার ভয়ে যদি কেউ এই ধরনের কাজ করে তাহলে সে কুফরি করলো

নূরে মুজাসসাম হাবিবুল্লাহ হুজুরে পাক রাসূলুল্লাহ [সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম] তিনি বলেন, “তোমরা প্রেমময়ী ও অধিক সন্তান দায়িনী নারীকে বিবাহ কর।  কারণ আমার উম্মতের সংখ্যা বেশী হওয়া আমার গৌরবের কারণ’ (আবুদাঊদ, নাসাঈ, মিশকাত হা/৩০৯১)

তবে স্ত্রী ও সন্তানের স্বাস্থ্যের দিকে লক্ষ্য রেখে স্ত্রীর অনুমতিক্রমে আযল বা জন্ম নিয়ন্ত্রণ করা যায় (বুখারী, মুসলিম, মিশকাত হা/৩১৮৪)

অর্থাৎ গর্ভধারণ করলে যদি স্ত্রীর জীবন নাশের সম্ভবনা থাকে তাহলে জন্মনিয়ন্ত্রণ ব্যাবহার করা জায়েযকিন্তু ছেলেদের ক্ষেত্রে স্থায়ীভাবে জন্মনিরোধ অর্থাৎ লাইগেশন ও ভ্যাসেকটমী আদৌ করা জায়েয নাআবার আপনার যৌন সুখ উপভুগ করার জন্যে বিয়ের পরে বউএর স্লিম ফিগার রাখার জন্যে জন্মনিয়ন্ত্রন হারাম

এতএব বুঝা গেলো দরিদ্রতা, অভাব, ভরন পোষন, লালন পালনের অক্ষমতা বা নিজের অতিরিক্ত চাহিদার জন্ন্যে এই কাজ গোলা কোরআন ও হাদিস শরীফের বিপরিত হওয়ায় সম্পূর্ণ রূপে কুফরি কাজআল্লাহ্‌ আমাদের এই ধরনের কুফরি কাজ থেকে হেফাজত করুন, অনেকে আপনাকে বলবে আপনি ৫০০০ টাকা রুজি করেন আপনার যদি ৪ টা বাচ্ছা হয় তাহলে তাদের লালন পালন করা আসম্ভব হবে তখন আপনার উত্তর দেওয়া উচিৎ আমি মোমেন আর মেমেনের জন্যে আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তালাই যথেষ্ট

বিশেষ দ্রষ্টব্যঃ পোষ্ট টা পড়ে যদি ভালো লাগে তাহলে অবশ্যই কমেন্ট বক্স এ আপনার মতামত জানাবেন আর আপনার বন্ধু বান্দব দের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন্নাআসসালামু আলাইকুমফি আমানিল্লাহ !!! আল্লাহ তায়ালা আমাদের সবাইকে সঠিক বুজ দান করুন,


সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুনঃ

এডমিন

আমার লিখা এবং প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বে আইনি।

0 facebook: