6.25.2016

বাংলাদেশে হিন্দু জনসংখ্যা সম্পর্কে পরিসংখ্যান ব্যুরোর তথ্য কতটুক সঠিক ?

বাংলাদেশে হিন্দু জনসংখ্যা সম্পর্কে পরিসংখ্যান ব্যুরোর তথ্য কতটুক সঠিক ?
বাংলাদেশে হিন্দু জনসংখ্যা সম্পর্কে পরিসংখ্যান ব্যুরোর তথ্য কতটুক সঠিক ?
সম্প্রতি বাংলাদেশের জনসংখ্যা পরিসংখ্যান ব্যুরো বলছেঃ- বাংলাদেশে হিন্দুদের জনসংখ্যা নাকি বেড়েছেতারা দাবি করেছে বাংলাদেশে হিন্দু জনসংখ্যা নাকি ১ কোটি ৭০ লক্ষ অর্থাৎ মোটের ১০.৭% (http://goo.gl/uNvAmR)পরিসংখ্যান ব্যুরোর এ তথ্য নিয়ে ইতিমধ্যে অনেকেই প্রশ্ন তুলেছে, বলেছে সরকার সাম্প্রতিক ঘটনা সামাল দিতে গিয়ে এ ভুয়া তথ্য প্রকাশ করেছে

একটু খেয়াল করুন? প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ীঃ-
১) ২০১৪ সালে দেশের জনসংখ্যা ছিল ১৫ কোটি ৬৮ লাখ
২) ২০১৫ সাল দেশের মোট জনসংখ্যা দাড়ায় ১৫ কোটি ৮৯ লাখে

অর্থাৎ ১ বছরে জনসংখ্যা বৃদ্ধি পায় ২১ লক্ষ আর সরকার দাবি করছে, বৃদ্ধি পাওয়া জনসংখ্যার ১৫ লক্ষ হচ্ছে হিন্দু ও প্রায় ১ লক্ষ হচ্ছে অন্যান্য সংখ্যালঘু জনগোষ্ঠীঅর্থাৎ ১ বছরে মুসলিম জনসংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে মাত্র ৫ লক্ষ
খেয়াল করুন, সরকারের দেয়া তথ্য মোতাবেক, মুসলিম পরিবারে জনসংখ্যা বেড়েছে ৫ লক্ষ, হিন্দু পরিবারে বেড়েছে ১৫ লক্ষ অর্থাৎ ৩ গুন বৃদ্ধি, যেহেতু তাদের হিসেবে মুসলমানের জনসংখ্যা হিন্দুর জনসংখ্যার ৯ গুন (যথাক্রমে ৯০% ও ১০%) সে হিসেবে ১ বছরে মুসলমানের তুলনায় হিন্দু বেড়েছে ৯ গুন ৩ = ২৭ গুন

অর্থাৎ সরকারের হিসেবে কোন মুসলিম পরিবারে যদি ১ জন শিশু জন্ম নেয়, তবে হিন্দু পরিবারে শিশু জন্ম নিয়েছে ২৭টি

এবার বাস্তবতায় আসুনঃ আপনার পাশের হিন্দু ঘরগুলোতে খবর লাগান, আর মুসলিম ঘরগুলোতে খবর লাগানদেখুন কার বাসায় কত সন্তান এসেছেযদি কোন এলাকায় মুসলিম পরিবারে ১টি নতুন বাচ্চার খবর পান, তবে হিন্দুর বাসায় ২৭টি বাচ্চার প্রাপ্তির খবর পেতে হবে, নয়ত এ পরিসংখ্যান ভুল বলে প্রমানিতআমার যুক্তি অস্বাভাবিক মনে হতে পারে, কিন্তু এ ধরনের অস্বাভাবিক তথ্যই দিয়েছে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো, যার বাস্তব কোন ভিত্তিই নাই

আসলে মিথ্যা হিসেব বাড়িয়ে হিন্দু জনসংখ্যা টিখিয়ে রাখারও তো দরকার দেখি নাআজ থেকে ৪০ বছর আগে শেখ মুজিব বলেছিলো বাংলাদেশে ৯৫% ভাগ মুসলমানসেখানে আজও রাজনীতিতে সংখ্যালঘু ইস্যু টিকিয়ে রাখার জন্য উদ্দেশ্যমুলক হিন্দু সংখ্যা বাড়িয়ে দেখানো হয়গত কয়েক বছর আগে একটা বেসরিকারি সংস্থার জরিপ দেখেছিলাম বলে মনে পরেতারা বলেছিলো, গড়ে প্রত্যেক থানায় তারা ৫০০০ হিন্দুর অস্তিত্ব পায় নাইকিছু থানায় কমবেশি হতে পারে, কিন্তু দেশের ৬০০ থানায় গড়ে ৫০০০ করে হিন্দু নাই দেশের ৬০০ থানায় যদি ৫ হাজার করে হিন্দু থাকে তবে দেশের মোট হিন্দু জনসংখ্যা দাড়ায় ৩০ লক্ষ, যা দেশের মোট জনসংখ্যার (১৬ কোটি) ২% শতাংশের কমঅর্থাৎ ২% শতাংশ হিন্দু থাকতে হলে প্রত্যেক থানায় ৫ হাজার করে হিন্দু থাকতে হবে, কিন্তু সেটা কোথায় ?

আমার মনে হয় প্রকৃত তথ্যটা সবার কাছে প্রকাশ করা উচিতহিন্দু জনসংখ্যা নিয়ে অযথা কারচুপির কোন মানে হয় না আর সরকারের জানা উচিত ছিলো এদেশে এখনো কিছু মানুষ আছে যাদের চোখে দেশ-বিরোধী কোনো কিছুই এড়িয়ে যায়না কারন তারা দালাল নয় দেশপ্রেমিক। সবাইকে ধন্যবাদ।


সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুনঃ

এডমিন

আমার লিখা এবং প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বে আইনি।

0 facebook: