8.18.2016

স্বাধীনতার ৭০ বছরেও ভারতীয় মুসলমানদের উন্নতি নেই – মুসলিম জাহানের একমাত্র সিংহ আসাদউদ্দিন ওয়াইসি

বর্তমান পৃথিবীতে যদি মুসলিমদের জন্য কোনো নেতাকে সিংহের খেতাব দেওয়া হয় তাহলে তা মজলিশ-ই ইত্তেহাদুল মুসলেমিনপ্রধান ব্যারিস্টার আসাদউদ্দিন ওয়াইসি যিনি একমাত্র ব্যক্তি ভারতে মুসলিমদের পরিস্থিতি এবং তার বিরুদ্ধে সমস্ত অভিযোগ প্রসঙ্গে বিতর্কের জন্য বিরোধীদের উদ্দেশ্যে প্রকাশ্যে চ্যালেঞ্জ জানালেন।

শনিবার ভারতের উত্তর প্রদেশের লখনৌতে দলীয় কর্মীদের এক সভায় আসাদউদ্দিন ওয়াইসি এমপি ওই চ্যালেঞ্জ জানান। তিনি বলেন, ‘স্বাধীনতার পর দেশের মুসলিমদের অবস্থা খারাপ থেকে আরো খারাপ হলেও কংগ্রেসসহ কোনো দলই এ নিয়ে মাথা ঘামায়নি।

ওয়াইসি বলেন, ‘সমাজবাদী পার্টি, বহুজন সমাজবাদী পার্টি, কংগ্রেস এবং বিজেপি আমাকে সাম্প্রদায়িক বলে থাকে। তারা বলে থাকে আমি নাকি উত্তেজক বক্তব্য দিয়ে থাকি। কিন্তু তাদের নেতারা যখন বক্তব্য দেন তাতে কী ফুল বর্ষণ হয়? আমি তো ৭০ বছর ধরে চাপা থাকা আবেগের কথা বলছি। সংবিধান আমাদের অধিকার আদায়ের জন্য আন্দোলন করার অধিকার দিয়েছে। আমি সমস্ত দলকে খোলা চ্যালেঞ্জ দিয়ে বলছি, তারা মুসলিমদের পরিস্থিতি এবং আমার ওপরে চাপানো অভিযোগ প্রসঙ্গে আমাদের সভায় এসে বিতর্ক করুন অথবা আমি তাদের সভায় গিয়ে বিতর্ক করতে পারি।

ওয়াইসি বলেন, ‘দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে মুসলিমরাও অংশগ্রহণ করেছিল। আলেমরা ইংরেজদের বিরুদ্ধে জেহাদের ফতোয়া দিয়েছিলেন, কিন্তু ইতিহাসবিদরা এসব কথা তুলে ধরেন না। স্বাধীনতার লড়াই মুসলিমরাই প্রথম শুরু করেছিল, কংগ্রেস বা অন্য কোনো দলের নেতারা নয়। কিন্তু তা সত্ত্বেও ইতিহাসে এদের স্থান হয়নি। কারণ, ইতিহাস লেখকরা মুসলিম ছিলেন না। এই জাতি সকলের ওপরে আস্থা রেখেছে কিন্তু তারা পশ্চাদপদতা ছাড়া কিছুই পায়নি।

তিনি বিভিন্ন দলের মুসলিম মুখ বা লিডারবলে পরিচিত সপা নেতা আজম খান, বসপা নেতা নাসিমুদ্দিন সিদ্দিকি এবং কংগ্রেস নেতা গুলাম নবী আজাদকে মুসলিম ডিলারবলে অভিহিত করেন।

ওয়াইসি বলেন, ‘সন্ত্রাসের অভিযোগেগ্রেফতার হওয়া যুবকদের আইনি সহায়তা দেয়ার কথা বলায় তার বিরুদ্ধে সন্ত্রাসীদের পাশে দাঁড়ানোর অভিযোগ করা হচ্ছে। যদিও এটা সত্যি যে, মহাত্মা গান্ধীর হত্যাকারী নাথুরাম গডসেকে আইনি সাহায্য দেয়ার জন্য (বিজেপির প্রতিষ্ঠাতা) শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জি অর্থ সংগ্রহ করে আইনি সহায়তা দিয়েছিলেন।


তিনি দলীয় কর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেন, মুসলিম হওয়ার জন্যই তাদের প্রতি বৈষম্য করা হয়। মজলিশ-ই ইত্তেহাদুল মুসলেমিনই কেবল তাদের অধিকার দিতে পারে বলেও ওয়াইসি মন্তব্য করেন।


সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুনঃ

এডমিন

আমার লিখা এবং প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বে আইনি।

0 facebook: