7.03.2017

সমকামীদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করা ফরজ তাই সমকামী GP এবং RTV কে বাঁশ দিতে এই পোষ্টটি পড়ুন

এই ব্লগপোষ্ট যাদের চোখে পড়বে সবার কাছে অনুরোধ আসুন আমরা পুটুকামীদের এবার একটু বাঁশ ডলা দিই বাঁশ ডলা দিতেঃ Grameenphone কে বাঁশ দেওয়ার জন্য এই লিঙ্ক (http://bit.ly/2tcy9ke) এবং সমকামীদের প্রচারের মাধ্যম Rtv কে বাঁশ দেওয়ার জন্য এই লিঙ্ক (http://bit.ly/2uvZoFW) It's harassing me or someone I know সিলেক্ট করে Submit to Facebook for Review সিলেক্ট করে Continue করে Block Grameenphone সিলেক্ট করে Continue করে দেবেন

এবং রেইনবো নির্মাতা Ashfaque Nipun এর আইডি কে বাঁশ দেওয়ার জন্য এই লিঙ্ক (http://bit.ly/2stILhP) এ গিয়ে This profile represents a business or organization সিলেক্ট করে Submit to Facebook for Review সিলেক্ট করে Done করে দিনব্যাস

কেনো করবেন?

তাহলে শুনুনঃ পুটুকামীদের এদেশীয় সর্দার জুলহাস বাবাজী মইরা ভূত হবার পরে বাংলাদেশে রেইনবোদের কার্যক্রমে ভাটা পড়েছিলরেইনবো নির্মাতা Ashfaque Nipun এর সেই ভাটায় জোয়ার আনতে এগিয়ে এসেছে চ্যানেল আরটিভি! এই সমকামী জাতিদের সমাজে প্রতিষ্ঠা করার বাসনায় এবারের ঈদে একটি নওটাঙ্কি বানিয়েছিল "রেইনবো " নামেআর সেই নাটকটি স্পন্সর করেছিল মানুষের কলিজার রক্ত চুষে খাওয়া Grameenphone কিন্তু অনালাইনে প্রতিবাদের ঝড় উঠলে তারা টিকতে না পেরে তাদের পেজে রিভিউ অপশন বন্ধ করে দেয় এবং আপাতত নাটকটি তাদের ইউটিউব চ্যানেল থেকে হাইড করে রেখেছেকতবড় চামার হইলে একবারও ক্ষমা না চেয়ে চোরের মতো হাইড করে দিলো!

আজ থেকে আমরা কেউ আরটিভি চ্যানেল দেখবেননাযদিও টিভি দেখা হারাম তার পরেও এখন দেশে অনেক চ্যানেল আছে, এক আরটিভি না দেখলে কিচ্ছু হবেনাএটাই হবে পুটুকামী মিডিয়ার আসল শাস্তিশুধু তাই নয় ঈমানের দাবী হচ্ছে তাদের ফেইসবুক পেইজের কোনো পোষ্টে লাইক কমেন্ট শেয়ার করবেন না যদিও তাতে মক্কা শরীফ মদিনা শরীফের ছবি থাকে

আপনারা হয়তো জানেন তার পরেও বলছি কোনো চ্যানেলের দর্শক ভিউ না থাকলে সেইটার মুল্য দুই পয়সাও থাকেনাআমরাই পারি এই পুটুকামী ওরফে সমকামী প্রচারের মিডিয়াকে চরমভাবে শায়েস্তা করতেযেনো ভবিষ্যতে অন্য কোন চ্যানেল এই দুঃসাহস আর কোনদিন না দেখায়

এবার সমকামিতার ব্যপারে পবিত্র দ্বীন ইসলাম কি বলেন এবং তা কতো নিকৃষ্ট কাজ এবং তার শাস্তি কি তা আপনাদের সম্মুখে উল্লেখ করবো

জিনার মধ্যে সবথেকে নিকৃষ্ট জিনা হচ্ছে সমকামিতাআর যারাই জিনায় লিপ্ত তারা খুবই নিকৃষ্ট কারন রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ ব্যভিচারকারী যখন ব্যভিচার করে তখন সে মুমিন অবস্থায় থাকে না

দলিল সুত্রঃ সহিহ বুখারি শরীফ ২৪৭৫ ও সহিহ মুসলিম শরীফ ৫৭

আর মহান আল্লাহ পাক তিনি সূরা হুদ শরীফে বলেছেনঃ এরপর যখন আমার সিদ্ধান্ত কার্যকর করা হলো তখন আমি তাদের জনপদের উপরিভাগ নিচে এবং নিম্নভাগ উপরে উঠালাম এবং তার উপর স্তরে স্তরে কাঁকর পাথর (যা আগুনে পুড়ে ইটের মত হয়ে গেল) বর্ষণ করলামপাথরগুলো ছিল সুচিহ্নিতএগুলো আপনার মালিকের ভাণ্ডারে ছিল” (অর্থাৎ ঊনার সেই কোষাগারে হাত দেয়ার ক্ষমতা মহান আল্লাহ পাক উনার অনুমতি ব্যতীত আর কারো ছিল না।) যা (অপরাধী ব্যক্তিদের নাম-ধামসহ) আপনার মালিকের কাছে চিহ্নিত ছিলো, আর (গযবের) এ স্থান তো এ যালেমদের কাছ থেকে দূরেও নয়! [সূরা হুদ আলাইহিস সালামঃ আয়াত শরীফ ৮২-৮৩]

অর্থাৎ হাবিবুল্লাহ হুযুরপাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার উম্মতেরাও যদি অনুরূপ ঘৃণ্য কাজ করে তাহলে কওমে লূত আলাইহিস সালাম উনার উম্মতের যে শোচনীয় পরিণতি হয়েছিল তা আমাদেরও হবেতাই আমাদের সাবধান করে রসুলুল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি বলেছেন, তোমাদের ওপর যে বস্তুটির সবচেয়ে বেশি আশংকা করি, তা হচ্ছে লুত আলাইহিস সালাম উনার জাতির জঘন্য কাজ(সমকামিতা)অতঃপর তিনি এ কাজে লিপ্তদেরকে তিনবার নিম্নরূপ অভিশাপ দেনঃ লুত আলাইহিস সালাম উনার জাতির কাজ যে করবে তার ওপর মহান আল্লাহ পাক উনার অভিসম্পাত

রসুলুল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি আরো বলেনঃ যাদেরকে তোমরা লূত আলাইহিস সালাম উনার সম্প্রদায়ের কাজে লিপ্ত পাবে, তাদের উভয়কেই হত্যা করবে” (আবু দাউদ শরীফ, তিরিমিযি শরীফ ও ইবনে মাজাহ শরীফ)

শুধু তাই নয় হযরত ইবনে আব্বাস রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু তিনি বলেনঃ এলাকার সবচেয়ে উঁচু বাড়ির ছাদের উপর থেকে তাদেরকে ফেলে দিতে হবে এবং ফেলে দেয়ার সাথে সাথে তাদের ওপর পাথর নিক্ষেপ করতে হবে, যেমন হযরত লূত আলাইহিস সালাম উনার জাতির উপর নিক্ষেপ করা হয়েছিলমুসলমানদের মধ্যে এসব ব্যাপারে ইজমা অর্থাৎ সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত হয়েছে, সমকামীতা একটা মারাত্বক কবীরা গুনাহ এবং এটা মহান আল্লাহ পাক তিনি কর্তৃক অবৈধ ঘোষিত

মহান আল্লাহ পাক তিনি আরো বলেনঃ পৃথিবীতে তোমরা কেবল পুরুষদের কাছেই গমন(সমকামীতার উদ্যেশ্যে) করো এবং তোমাদের জন্য তোমাদের প্রতিপালক যে জোড়া সৃষ্টি করেছেন তা পরিত্যাগ কর? প্রকৃতপক্ষে তোমরা সীমা লঙ্গনকারী। (অর্থাৎ হালালের সীমা অতিক্রম করে হারামের সীমায় প্রবেশকারী)। [সুরা আশ শুয়ারা শরীফঃ আয়াত শরীফ ১৬৫-১৬৬]

অপর এক আয়াত শরীফে মহান আল্লাহ পাক তিনি হযরত লূত আলাইহিস সালাম সম্পর্কে বলেনঃ আর আমি উনাকে সেই জনপদ থেকে উদ্ধার করেছি, যে জনপদ ছিলো অশ্লীল কাজে লিপ্তসেই জনপদবাসীরা ছিলো দুরাচারী পাপিষ্ঠ। [সূরা আল আম্বিয়া শরীফঃ আয়াত শরীফ ৭৪]

তাদের সেই জনপদের নাম ছিলো সামূদসেখানকার অধিবাসীরা এতই অশ্লীল কর্মকাণ্ডে লিপ্ত ছিলো যে পবিত্র কুরআন শরীফে এর বর্ণনা উল্লেখিতও হয়েছেতারা পুরুষদের মলদ্বারে সংগম করতো এবং প্রকাশ্য সমাবেশে নানারকম পাপাচারে লিপ্ত ছিলযেমন একটি হাদীস শরীফে রসূল ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি বলেন, যৌন উত্তেজনার সাথে নারীদের পারস্পরিক আলিঙ্গনও ব্যভিচারের শামিল

তাবরানী শরীফ ও বায়হাকী শরীফে বর্ণিত হাদীস শরীফে রসুলুল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেন; “চার ব্যক্তি সকাল সন্ধ্যা মহান আল্লাহ পাক উনার গযব ও আক্রোশের আওতায় থাকেঃ মহিলাদের সাথে সাদৃশ্যপূর্ণ বেশভূষা গ্রহণকারী পুরুষ, পুরুষদের সাথে সাদৃশ্যপূর্ণ বেশভূষা গ্রহণকারী মহিলা, জীবজন্তুর সাথে সংগমকারী এবং সমকামী

অন্য এক হাদীস শরীফে হযরত আবু হুরায়রা রাদিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু থেকে বর্ণিত আছে, চার শ্রেণীর লোক সকাল সন্ধ্যা মহান আল্লাহ পাক উনার ক্রোধে অতিবাহিত করেএরা হল মহিলা বেশধারী পুরুষ, পুরুষ বেশধারী মহিলা, পশুকামী ও পুরুষকামীআরো বর্ণিত রয়েছে, “যখন কোন পুরুষ অপর কোন পুরুষের সাথে সমকামীতায় লিপ্ত হয়, তখন মহান আল্লাহ পাক উনার গযবের ভয়ে মহান আল্লাহ পাক উনার আরশ কাঁপতে থাকে এবং আকাশ পৃথিবীর উপর ভেঙ্গে পড়ার উপক্রম হয়হযরত ফেরেশতা আলাইহিমুস সালাম উনারা মহান আল্লাহ পাক উনার ক্রোধ প্রশমিত হওয়া পর্যন্ত আকাশকে তার প্রান্তসীমায় ধরে রাখেন এবং সূরা ইখলাস শরীফ তিলাওয়াত করতে থাকেন

রসূল ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি বলেনঃ সাত শ্রেণীর লোকের উপর মহান আল্লাহ পাক তিনি অভিশাপ বর্ষণ করেন, কিয়ামতের দিন এদের দিকে ফিরেও তাকাবেন না এবং এদেরকে জাহান্নামে প্রবেশের আদেশ দিবেনঃ
১/ সমকামীদের,
২/ জীবজন্তুর সাথে সংগমকারী,
৩/ কোন মহিলা ও তার কন্যাকে একসাথে বিবাহকারী,
৪/ আপন বোনের সাথে ব্যভিচারী,
৫/ কন্যার সাথে ব্যভিচারকারী এবং হস্তমৈথুনকারী
তবে এরা যদি তাওবা করে তাহলে তারা সবাই হয়তো ক্ষমা পেতে পারে

আরো বর্ণিত আছে, “কিয়ামতের দিন এক শ্রেণীর লোক এমনভাবে উঠবে, তাদের হাত ব্যভিচারের ফলে অন্তঃসত্তা থাকবেযারা দুনিয়ার জীবনে হস্তমৈথুন করত

অন্য এক হাদীস শরীফে আরো উল্লেখিত রয়েছে, “দাবা ও পাশা জাতীয় খেলা, কবুতরের লড়াই, কুকুরের লড়াই, মেষ লড়াই, মোরগ লড়াই, পোশাক না নিয়ে গোসলখানায় প্রবেশ এবং মাপে কম দেয়া- এসব লূত আলাইহিস সালাম উনার জাতির কাজএসব কাজে যারা জড়িত থাকবে, তাদের জন্য কঠোর শাস্তি অবধারিত

হযরত ইবনে আব্বাস রদ্বিয়াল্লাহু তায়লা আনহু থেকে বর্ণিত, “কোন সমকামী বিনা তাওবায় মারা গেলে সে কবরে শূকরের আকৃতি ধারণ করবেইবনে আব্বাস রদ্বিয়াল্লাহু তায়লা আনহু আরো বলেন, রসুলুল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি বলেছেনঃ যে ব্যক্তি কোন পুরুষ বা নারীর মলদ্বারে সংগম করবে, মহান আল্লাহ পাক তিনি তার দিকে তাকাবেন না” (তিরমিযি শরীফ, নাসায়ী শরীফ)

উপরোক্ত আলোচনা থেকে যা স্পষ্ট হয় সমকামিতা এতো নিকৃষ্ট একটি কাজ যা ভাষায় প্রকাশ করা প্রায় অসম্ভবতাই মুসলমান হিসেবে আমাদের উপর ফরজ হচ্ছে আমাদের আশেপাশে যেখানেই এগুলো হতে দেখবো আমরা যেনো তা প্রতিহত করিনাহলে আমাদের ঈমান ও থাকবেনা কারন অন্যায়কারী এবং অন্যায় কে প্রশ্রয়দানকারী উভয়েই সমান অপরাধি

শুধু তাই নয় পবিত্র হাদিস শরীফে আবূ সাঈদ খুদরী রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু থেকে বর্ণিত তিনি বলেন, আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে বলতে শুনেছিঃ তোমাদের মধ্যে যে ব্যক্তি কোনো অন্যায়/গর্হিত কাজ হতে দেখবে, সে যেনো তা তার নিজ হাত দ্বারা তার প্রতিবাদ করেযদি (তাতে) ক্ষমতা না রাখে, তাহলে নিজ জিভ দ্বারা (উপদেশ দিয়ে পরিবর্তন করে)যদি (তাতেও) সামর্থ্য না রাখে, তাহলে অন্তর দ্বারা (ঘৃণা করে)আর এ হল সবচেয়ে দুর্বল ঈমান

হাদিস শরীফ সুত্রঃ [বুখারী শরীফ ৯৫৬, মুসলিম শরীফ ৪৯, তিরমিযী শরীফ ২১৭২, নাসায়ী শরীফ ৫০০৮, ৫০০৯, আবূ দাউদ শরীফ ১১৪০, ৪৩৪০, ইবনু মাজাহ শরীফ ১২৭৫, ৪০১৩, আহমাদ শরীফ ১০৬৮৯, ১০৭৬৬, ১১০৬৮, ১১১০০, ১১১২২, ১১১৪৫, ১১৪৬৬, দারেমী শরীফ ২৭৪০১]

এবার আপনি প্রতিবাদ কারী না হলে, নিজেই নিজের ঈমানকে চেক করে নিন তা কোন লেবেলে বর্তমানে অবস্থান করছে


সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুনঃ

এডমিন

আমার লিখা এবং প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বে আইনি।

0 facebook: